NOVOAIR

করোনায় নিঃস্ব হয়ে দেশে ফিরেছেন প্রবাসের রেমিটেন্স যোদ্ধারা

দীর্ঘদিন প্রবাস জীবনযাপন করে যারা দেশে রেমিটেন্সের জোগান দিয়েছেন, তাদের অনেকেই করোনাকালে অসহায় ও নিঃস্ব হয়ে দেশে ফিরেছেন। এমন পরিস্থিতিতে এই রেমিটেন্স যোদ্ধারা এককালীন আর্থিক সহায়তার পাশাপাশি নিয়মিত পেনশন চান।

সৌদি আরব মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশের বৃহত্তম শ্রমবাজার। সেখানে প্রায় ২০ লাখের মতো বাংলাদেশি বিভিন্ন পেশায় নিয়োজিত। তারা জীবনের বড় একটি অংশ প্রবাসের মাটিতে কঠোর পরিশ্রম করে কাটিয়েছেন, দেশে পাঠিয়েছেন রেমিটেন্স। কিন্তু এদের মধ্যে এমন অনেক প্রবাসীই রয়েছেন যারা করোনার মধ্যে কর্মহীন হয়ে দেশে ফিরতে বাধ্য হয়েছেন। সহায়-সম্বলহীন এসব প্রবাসী দেশে ফিরে মানবেতর জীবনযাপন করছেন।

প্রবাসীরা জানান প্রবাসে মৃত্যুবরণ করলেও মরদেহ দেশে ফিরিয়ে আনতে নানা জটিলতার কথা । করোনাকালে অর্থনৈতিক সংকটে থাকার কারণে অনেক প্রবাসীর মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা সম্ভব হয় না। সে ক্ষেত্রে বাংলাদেশ সরকারের কাছে বিনা খরচে প্রবাসীদের মরদেহ তার পরিবারের কাছে হস্তান্তরের ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য অনুরোধ জানান প্রবাসীরা।

করোনাকালে সংকট মোকাবিলায় সরকারের পক্ষ থেকে নিয়মিত প্রবাসী অবসরকালীন ভাতা চালু করার দাবিও জানান তারা।

আরও খবর
Loading...