NOVOAIR

চীনা টেলিভিশনের সম্প্রচার বাতিল করেছে যুক্তরাজ্য

যুক্তরাজ্য সরকার চীনের রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন টেলিভিশন চ্যানেল চায়না গ্লোবাল টেলিভিশন নেটওয়ার্ক- সিজিটিএন এর লাইসেন্স বাতিল করেছে।

বৃহস্পতিবার যুক্তরাজ্যের সম্প্রচারমাধ্যম নিয়ন্ত্রক প্রতিষ্ঠান অফকম জানায়, ‘লাইসেন্সটি স্টার চায়না মিডিয়া লিমিটেড অবৈধভাবে নিয়েছিল এমন উপসংহারে আসার পর’ তারা সিজিটিএন এর লাইসেন্স প্রত্যাহার করে নিয়েছে।

অফকম আরও জানায়, চ্যানেলটি যা তৈরি করে তার জন্য স্টার মিডিয়া লিমিটেড ‘সম্পাদকীয় দায়িত্ব’ পালন করেনি, ফলে লাইসেন্স ধরে রাখার মতো আইনি শর্ত তারা মেনে চলতে পারেনি। অফকম জানায়, স্টার সিজিটিএন এর সরবরাহকারী হওয়ার চেয়ে স্টার মূলত পরিবেশক হিসেবেই কাজ করছিল।

সিজিটিএন প্রস্তাব দিয়েছিল তারা অন্য প্রতিষ্ঠানের কাছে লাইসেন্স হস্তান্তর করবে। কিন্তু সে প্রস্তাবও ফিরিয়ে দিয়েছে অফকম। লাইসেন্স অন্য প্রতিষ্ঠানের কাছে গেলেও চ্যানেলটি চীনের কমিউনিস্ট পার্টি দ্বারাই নিয়ন্ত্রিত হবে এমন তথ্যের ভিত্তিতে তারা এই সিদ্ধান্ত নেয়। যুক্তরাজ্যের আইনেও এটি অবৈধ।

অফকমের মুখপাত্র বলেন, ‘নিয়ম মেনে চলতে আমরা সিজিটিএনকে প্রচুর সুযোগ দিয়েছি, কিন্তু তারা মেনে চলতে পারেনি। তাই আমরা এখন যুক্তরাজ্য থেকে এর লাইসেন্স প্রত্যাহার করে নেয়াটাই উপযুক্ত মনে করছি।’

শুক্রবার যুক্তরাজ্যের এ সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়েছে চীন। সিদ্ধান্তটি ‘রাজনৈতিক কারণে’ নেয়া হয়েছে বলে মন্তব্য করেছে দেশটির সরকার।

চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ওয়াং ওয়েনবিন বলেন, ‘একদিকে ব্রিটিশ পক্ষ গণমাধ্যমের স্বাধীনতাকে সমর্থন করে। অন্য দিকে তারা প্রকৃত কারণগুলোকে উপেক্ষা করে ব্রিটেনে সিজিটিএন এর লাইসেন্স বাতিল করে দিল। এই সিদ্ধান্তকে ‘অশোভন দ্বৈতনীতি এবং রাজনৈতিক নিপীড়ন’ বলেও মন্তব্য করেন তিনি। সূত্র : সিএনএন

আরও খবর
Loading...