চীনে সীমিত আকারে ফ্লাইট পরিচালনা করতে পারবে যুক্তরাষ্ট্র

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবরোধে চীনে বেশির ভাগে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চলাচল বন্ধ রয়েছে। তবে মার্কিন ক্যারিয়ারের উপর থেকে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে সীমিত পরিমাণে পুনরায় যাত্রীবাহী ফ্লাইট চলাচলের অনুমতি দিচ্ছে চীন।

বৃহস্পতিবার (৪ জুন) আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম এএফপিতে প্রকাশিত এক প্রতিবেদন থেক এসব তথ্য পাওয়া যায়। যুক্তরাষ্ট্রের ভিতরে এবং বাইরে চীনাদের ভ্রমণ স্থগিত করার নির্দেশ দেওয়ার একদিন পর এই ঘোষণা দিলো দেশটি।

এর আগে চীনের সিভিল এভিয়েশন অথরিটি (সিএএসি) ১২ মার্চ পর্যন্ত বিদেশি বিমান সংস্থাগুলোর তাদের কর্মকাণ্ডের ভিত্তিতে একটি সীমা আরোপ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলো।

বুধবার (৩ জুন) মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র বলেছে যে ১৬ জুন থেকে চীনা যাত্রীদের জন্য ফ্লাইট বন্ধ করে দেয়া হবে। আর এই ঘোষণা অর্থনৈতিক টাইটানসের (চীন) জন্য উদ্বেগজনক। তবে সিএএসি বৃহস্পতিবার বলেছে, ১২ মার্চ থেকে তালিকাভুক্ত বিদেশি বিমান সংস্থাগুলি এখন থেকে প্রতি সপ্তাহে একটি করে আন্তর্জাতিক রুটে চীন যেতে পারবে।

করোনা চীনে সৃষ্ট ভাইরাস প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের এমন অভিযোগের পর থেকে সম্প্রতি মাসগুলোতে ওয়াশিংটন এবং বেইজিংয়ের মধ্যেকার সম্পর্ক ক্রমশ খারাপ হয়ে উঠেছে। তার উপর হংকংয়ে পাশ হওয়া বিতর্কিত জাতীয় সুরক্ষা আইন পরিকল্পনাটি যথেষ্ট পরিমাণে উত্তেজনা বাড়িয়েছে।

আরও খবর
Loading...