ঢাকা থেকে থাইল্যান্ডে মেডিকেল, নন-মেডিকেল যাত্রীদের জন্য ফ্লাইট শুরু

করোনা মহামারিতে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর থাইল্যান্ডে যাত্রী পরিবহন শুরু হয়েছে।
২৬ ফেব্রুয়ারি একটি ফ্লাইটে কিছু সংখ্যাক থাই অধিবাসী ও ব্যাংকক হসপিটালের বাংলাদেশি রোগী ব্যাংকক যান।

করোনা মহামারীর মধ্যে এটি ছিল ঢাকা-ব্যাংকক প্রথম ফ্লাইট।
মহামারী কালে যাত্রী পরিবহন শুরু করাকে ঢাকাস্থ থাই দূতাবাস স্বাগত জানিয়েছে।

ব্যাংকক হসপিটাল সূত্র জানিয়েছে, চিকিৎসা প্রত্যাশী বাংলাদেশি যাত্রীদের জন্য রয়েছে ব্যাংকক হসপিটালের পৌঁছেই ভর্তি হবার সুবিধা, সেখানে বাংলাদেশ মেডিকেল সার্ভিসের বিশেষ সেবা, বিশ্বমানের চিকিৎসা এবং ব্যাংকক হসপিটালেই কোয়ারেন্টাইনের বিশেষ সুযোগ।

মেডিকেল, পর্যটন, ব্যবসায়ী ও এলিট ভিসাধারীরা এখন থেকে থাইল্যান্ডে গমন করতে পারবেন।

ব্যাংকক হসপিটাল বাংলাদেশ অফিস এর মার্কেটিং ম্যানেজার আইভি ট্রিপল্যান্ড জানান, বাংলাদেশ থেকে জরুরি রোগী ব্যাংকক হসপিটালে স্থানান্তরের জন্য আমাদের রয়েছে এয়ার এম্বুল্যান্স সার্ভিস। এখন থেকে এই সার্ভিসের মাধ্যমে রোগী স্থানান্তর করা যাবে! ব্যাংকক হসপিটালের ঢাকা ও চট্টগ্রামের তিনটি অফিসে এ সংক্রান্ত সেবা পাওয়া যাবে।

আরও খবর
Loading...