ভারত-পাকিস্তান কাশ্মীরে ক্রস-বর্ডার ফায়ারিং বন্ধে একমত

ভারত ও পাকিস্তান কাশ্মীরে ‘ক্রস-বর্ডার ফায়ারিং’ বন্ধে একমত হয়েছে।

এ ছাড়া অন্য সব চুক্তি কঠোরভাবে মেনে চলতে রাজি হয়েছে দুই দেশ। বলা হয়েছে নিয়ন্ত্রণ রেখা এবং অন্যান্য সেক্টরেও সব সমঝোতা ও অস্ত্রবিরতিতে রাজি হয়েছে তারা। এই অস্ত্রবিরতি বুধবার মধ্যরাত থেকে কার্যকর হওয়ার কথা।

পাকিস্তানের আইএসপিআর’কে উদ্ধৃত করে এ খবর দিয়েছে অনলাইন ডন এবং আল জাজিরা। এতে আরো বলা হয়, রেডিও পাকিস্তানের দেয়া তথ্যে বলা হয়েছে- দুই দেশের ডিরেক্টরস জেনারেল অব মিলিটারি অপটারেশনসের (ডিজিএমওস) মধ্যে টেলিফোনে যোগাযোগ হয়েছে। এ সময় তারা আলোচনার মাধ্যমে ওই কৌশল নির্ধারণ করেছেন। ডিজিএমওস’রা একে অন্যের সঙ্গে অন্যান্য মূল ইস্যু ও উদ্বেগের বিষয় উপস্থাপনেও রাজি হয়েছেন।

বিশেষ করে যেসব বিষয় শান্তি বিঘ্নিত করে, সহিংসতা সৃষ্টি করে। উভয় পক্ষ এ সময় নিয়ন্ত্রণ রেখার পরিস্থিতি পর্যালোচনা করেন। এ ছাড়া অন্যান্য সেক্টরের পরিস্থিতি মুক্তভাবে, খোলামনে এবং আন্তরিক পরিবেশে একে অন্যের কাছে তুলে ধরেন। যদি কোনো অনাকাঙ্খিত ঘটনা ঘটে এবং ভুল বোঝাবুঝি হয় তাহলে তা টেলিফোন যোগাযোগ এবং বর্ডার ফ্লাগ মিটিংয়ের মাধ্যমে সমাধানের কথা পুনর্ব্যক্ত করা হয়।

পাকিস্তানের সেনা মুখপাত্র মেজর জেনারেল বাবর ইফতিখার বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলগুলোতে বলেছেন, ১৯৮৭ সাল থেকেই ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে হটলাইনে যোগাযোগ হয়ে আসছে। প্রতিষ্ঠিত মেকানিজমের অধীনে উভয় দেশের ডিজিএমওস’রা যোগাযোগ করেন।

আরও খবর
Loading...