যুক্তরাষ্ট্রের চাকরির বাজার স্বাভাবিক হচ্ছে

ইউরোপের অর্ধকোটির বেশি মানুষ করোনা মহামারিতে চাকরি হারিয়েছেন। যাদের অর্ধেকই তরুণ। করোনার কারণে চাকরির বাজার স্থিতিশীল হচ্ছে না।

মহামারির বছরে ইউরোপের শ্রমবাজার বিপর্যস্ত হলেও ঘুরে দাঁড়াতে শুরু করেছে যুক্তরাষ্ট্র। মার্চে দেশটিতে ৯ লাখ মানুষের চাকরির ব্যবস্থা হয়েছে। লকডাউন না থাকায় খুলছে হোটেল, রেস্টুরেন্ট, পর্যটন স্থান। শুরু হচ্ছে অবকাঠামো উন্নয়নের কার্যক্রম।

ফেব্রুয়ারিতে দেশটির বেকারত্ব হার ছিলো ৬ শতাংশের ওপরে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ক্ষমতা গ্রহণের পর দেশের অর্থনীতির স্বার্থে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ নিয়েছেন। মহামারিতে দেশটিতে অন্তত ২ কোটি মানুষ বেকার হয়েছিলেন। এখনো পর্যন্ত চাকরি পেয়েছেন অর্ধেকের বেশি।

২০২০ সালের পুরোটাই বিপর্যস্ত ছিলো ইউরোপের চাকরির বাজার। মহামারির সময় লাখ লাখ মানুষ চাকরি হারিয়েছেন ২৭ দেশের এ অঞ্চলে। আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থার রিপোর্ট বলছে, মহামারির বছরে এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে ৮ কোটি ১০ লাখ মানুষ বেকার হয়েছেন। তরুণদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে নানা পরিকল্পনা নিয়েছে ব্রাসেলস। ভয়াবহ ক্ষতিগ্রস্ত ২৫ লাখ কোম্পানিকে দেয়া হচ্ছে জরুরি সহায়তা।

 

আরও খবর
Loading...