১১ বছর পর ঢাকায় ফ্লাইট শুরু করলেও ফের বন্ধ করলো ব্রিটিশ এয়ারওয়েজ

করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে বাংলাদেশে আটকা পড়া যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের ফিরিয়ে নিতে এগারো বছর পর ঢাকায় এসেছিলো ব্রিটিশ এয়ারওয়েজ। পরিচালনা করেছে ৯টি ফ্লাইট। তবে আবার কবে আসবে ব্রিটিশ এয়ারওয়েজ তার ঠিক নেই।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশে অবস্থানরত ১৪৩ জন ব্রিটিশ নাগরিক ব্রিটিশ এয়ারওয়েজে চড়ে ঢাকা ছেড়েছেন।

বৃহস্পতিবার ( ০৭ মে) হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ব্রিটিশ এয়ারওয়েজের এক বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকা ছেড়েছেন তারা।

ঢাকায় নিযুক্ত ব্রিটিশ হাইকমিশনার রবার্ট চ্যাটার্টন ডিকসন জানিয়েছেন নবম দফায় এসব ব্রিটিশ নাগরিক ঢাকা ত্যাগ করেছেন।

বাংলাদেশে আটকে পড়া ব্রিটিশ নাগরিকদের জন্য প্রথম দফায় ৪টি ও দ্বিতীয় দফায় ৫টি বিশেষ ফ্লাইটের ব্যবস্থা করা হয়। বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দফার শেষ ফ্লাইটটি সিলেট থেকে ঢাকা হয়ে লন্ডনের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়।

দ্বিতীয় দফার প্রথম ফ্লাইট গত ২৯ এপ্রিল সিলেট থেকে ঢাকা হয়ে লন্ডন যায়। ১ মে সিলেট থেকে ঢাকা হয়ে লন্ডন যায় দ্বিতীয় ফ্লাইট। ৩ মে ঢাকা থেকে লন্ডন যায় তৃতীয় ফ্লাইট। ৫ মে সিলেট থেকে ঢাকা হয়ে লন্ডন যায় চতুর্থ ফ্লাইট। আর ৭ মে সিলেট থেকে ঢাকা হয়ে লন্ডন গেলো পঞ্চম ফ্লাইট।

এর আগে ব্রিটিশ এয়ারওয়েজের চারটি বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকা থেকে লন্ডন গেছেন ব্রিটিশ নাগরিকরা। গত ২১, ২৩, ২৫ ও ২৬ এপ্রিল আরও চারটি ফ্লাইট ঢাকা থেকে লন্ডনে যায়।

করোনা ভাইরাসের কারণে ঢাকার সঙ্গে চীন ছাড়া সব দেশের প্লেন যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। তবে বিদেশি নাগরিকরা বাংলাদেশ ছাড়তে চাইলে তাদের চার্টার্ড ফ্লাইট ব্যবহারের অনুমতি দেওয়া হয়েছে। সে অনুযায়ী বিদেশি নাগরিকরা ঢাকা ছাড়তে পারবেন।

আরও খবর
Loading...