৩৫ জনকে নিয়ে পাকিস্তান যাচ্ছে ১৬২ আসনের ‘মেঘদূত’

৩৫ জনকে নিয়ে পাকিস্তান যাচ্ছে ১৬২ আসনের ‘মেঘদূত’।

বাংলাদেশ দলের বহুল আলোচিত পাকিস্তান সফর শুরু হচ্ছে আজ। মাহমুদউল্লাহরা লাহোরে যাচ্ছেন বিশেষ ভাড়া করা বিমানে (চার্টার্ড ফ্লাইট)। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের ‘মেঘদূত’ উড়োজাহাজে পাকিস্তানে যাচ্ছেন ক্রিকেটাররা। ঢাকা থেকে বাংলাদেশ দলের রওনা দেওয়ার সময় রাত ৮টায়। পৌঁছানোর কথা স্থানীয় সময় রাত ১০টা ৩০ মিনিটে।

ভৌগোলিক দূরত্বে বাংলাদেশ থেকে পাকিস্তান খুব বেশি দূরে না হলেও আকাশপথে সেখানে যাওয়াটা একটু জটিলই। সরাসরি ফ্লাইট না থাকায় ঢাকা থেকে পাকিস্তানে যেতে হয় অন্য কোনো দেশ হয়ে। গত বছর যেমন বিসিবির যে দুটি দল পাকিস্তানে গেছে, দুটিই দোহা হয়ে। সময়ও লেগেছে প্রায় ১২-১৩ ঘণ্টা। অথচ ঢাকা থেকে সরাসরি লাহোরে যেতে ৩-৪ ঘণ্টার বেশি সময় লাগার কথা নয়। এবারও বিসিবি দোহা হয়েই পাকিস্তানে যেতে চেয়েছিল। কিন্তু ভ্রমণটা খুব ঝক্কির হয়ে যাবে বলে পরে সিদ্ধান্ত বদলেছে।
বিমানের একটি সূত্রে জানা গেছে, বাংলাদেশ বিমানের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ মডেলের একটি ভাড়া করা উড়োজাহাজে যাচ্ছে বিসিবি, যেটির ধারণক্ষমতা ১৬২ জন। ভাড়া করা বিমান বলে ধারণক্ষমতার তিন চতুর্থাংশই খালি পড়ে থাকবে। ১৫ খেলোয়াড়, কোচিং স্টাফ, কর্মকর্তা ও সাংবাদিক সব মিলিয়ে ৩৫ জনের একটি তালিকা দিয়েছে বিসিবি। যেহেতু পাকিস্তানে কোনো ফ্লাইট নেই বিমান বাংলাদেশের, লাহোর থেকে কোনো যাত্রী ছাড়াই ঢাকায় ফিরবে উড়ানটি। যাওয়া-আসায় বিসিবিকে দিতে হচ্ছে প্রায় দেড় লাখ মার্কিন ডলার (১ কোটি ২৭ লাখ টাকা)।

কাল লাহোরে এক দিনের প্রস্তুতি শেষে পরশু থেকে শুরু হবে পাকিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশ দলের টি-টোয়েন্টি সিরিজ। সিরিজ শেষে ভাড়া করা বিমানেই ২৮ জানুয়ারি দেশে ফিরবেন খেলোয়াড়েরা।

আরও খবর
Loading...