সৌদিতে টেলিকম খাতে ৫০ ভাগ বিদেশিকে বিদায়

saudi-in-telecom-bg20160610193723সৌদি আরবে নির্ধারিত ৬ মাসের মধ্যে প্রথম ৩ মাসে টেলিকম খাত থেকে ৫০ শতাংশ বিদেশিকে বিদায় করে দেওয়া হয়েছে। বাকি ৩ মাসে অপর ৫০ ভাগকে বিদায় করে এই খাতকে শতভাগ স্থানীয়করণ করা যাবে বলে আশা করছে কর্তৃপক্ষ।

সৌদির শ্রম মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, ২০১৬ সালের ২৩ সেপ্টেম্বরের মধ্যে দেশটির টেলিকম বা মোবাইল খাতকে শতভাগ স্থানীয়করণ করা হবে। এর অর্থ টেলিকম খাতে কাজ করবেন কেবলই সৌদি নাগরিকরা।

এই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ মন্ত্রণালয়, শ্রম ও সামাজিক উন্নয়ন মন্ত্রণালয়, পৌর ও গ্রাম বিষয়ক প্রশাসন এবং টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয় যৌথভাবে কাজ করছে।

বাণিজ্য ও বিনিয়োগ মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা সাংবাদিকদের জানান, তারা সৌদি আরবের বিভিন্ন এলাকায় কড়া নজরদারি রাখছেন। মোবাইল-ফোন খাতসংশ্লিষ্ট যেসব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান এই সিদ্ধান্ত লঙ্ঘন করবে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে। এক্ষেত্রে যার অপরাধ ধরা পড়বে তার দুই বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড এবং ১০ লাখ সৌদি রিয়াল অর্থদণ্ডও হতে পারে।

তিনি বলেন, যদি কোনো বিদেশি এই আইন লঙ্ঘন করে থাকেন, তাহলে তার কারাদণ্ড শেষ হওয়ার পর তাকে দেশে ফেরত পাঠানো হবে। আর ওই ব্যবসা প্রতিষ্ঠানও বন্ধ করে দেওয়া হবে এবং দোষী ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান পরবর্তী ৫ বছর পর্যন্ত ওই ব্যবসা করার জন্য অনুমতি পাবেন না।

এ খাতে চলমান সিদ্ধান্তের অগ্রগতি তদারকি করতে মাঠ পর্যায়ে পরিদর্শনে নেমেছেন দেশটির শ্রমমন্ত্রী। শ্রমমন্ত্রীর অভিযানে অনেক দোকান-পাট বন্ধও করে দেওয়া হয়েছে।

মন্ত্রীর অভিযানের প্রেক্ষিতে অনেক প্রতিষ্ঠান তাদের বিদেশি কর্মীদের ‘সাময়িক ছুটিতে’ পাঠিয়ে দিয়েছে। এতে হতাশ হয়ে পড়েছেন এই খাতে দীর্ঘদিন যাবত কাজ করে যাওয়া বিদেশি কর্মীরা।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.