বিমানের ড্রিমলাইনারের সি-চেক হওয়ায় আর্থিক সাশ্রয় ৬ লাখ মার্কিন ডলার

বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মো. মাহবুব আলী বলেছেন, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের দক্ষ প্রকৌশলী ও টেকনিশিয়ানদের মাধ্যমে প্রথমবারের মতো সম্পূর্ণ নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় বিশ্বের সর্বাধুনিক প্রযুক্তির বোয়িং ৭৮৭-৮ ড্রিমলাইনার উড়োজাহাজের সি-চেক সফলভাবে সম্পন্ন হয়েছে।

এর ফলে বিমানের আর্থিক সাশ্রয় হয়েছে ছয় লাখ মার্কিন ডলার।

এ বছর আরও ১টি ও আগামী বছরে আরও ৪টি ড্রিমলাইনারের সি-চেক দেশেই সম্পন্ন হবে, বিধায় আরও ৩ থেকে ৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আর্থিক সাশ্রয় হবে বিমানের বলেও জানান তিনি।

রোববার বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের প্রধান কার্যালয় বলাকায় ড্রিমলাইনারের সফল সি-চেক সমাপনী ও করোনা মহামারির শুরুর দিকে চীনের উহান শহরে আটকেপড়া বাংলাদেশিদের উদ্ধারে ফ্লাইট পরিচালনাকারী বিমান ক্রুদের সম্মাননা প্রদান উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন তিনি।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.