অ্যাপের বাইরে খ্যাপ মারলেই জেল-জরিমানা

অ্যাপের ব্যবহার ছাড়াই অনিবন্ধিত বাইকচালকে ছেয়ে গেছে পুরো রাজধানী। বাইকচালকরা প্রায় অর্ধশত জায়গায় নিজেদের মতো গড়ে তুলেছে বাইকস্ট্যান্ড। বিআরটিএ বলেছে, এসব বাইকচালকদের কারণে রাজধানীজুড়ে বেড়েছে যানজট। অ্যাপের বাইরে ভাড়ায় চালালে জেল, জরিমানা এমনকি মোটরসাইকেলের নিবন্ধন বাতিলের ব্যবস্থা করা হবে।

অন্যদিকে চালকেরা বলছেন, মহামারীকালে সরকার কঠোর হলে তাদের পথে বসতে হবে।

 

কোনো রিকশা বা সিএনজি চালক নয়, যাত্রীর সঙ্গে ভাড়া নিয়ে দরকষাকষি করছেন একজন বাইকচালক।

রাজধানীর মোড়ে মোড়ে এমন দৃশ্য এখন সাধারণ বিষয়।

প্রাথমিকভাবে উবার, পাঠাওয়ের মতো মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে ভাড়ায় যাত্রী চলাচল শুরু করলেও সময়ের বিবর্তনে ভাটা পড়েছে অ্যাপের ব্যবহারে।

প্রধান সড়ক থেকে অলিগলিতে নিজদের দাঁড়ানোর জন্য একটি অঘোষিত লেনও তৈরি করে নিয়েছেন তারা।

 

এছাড়া রাজধানীজুড়ে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা এসব বাইকস্ট্যান্ডগুলোতে নিজেরাই নির্ধারণ করে নিচ্ছেন ভাড়া।

পুলিশ বলেছে, অনিবন্ধিত উপায়ে মোটরসাইকেল ভাড়ায় চালানোর সুযোগ দিতে পারে না সরকার। তবে এসব ক্ষেত্রে প্রয়োগ করার মতো কোনো আইন নেই প্রচলিত ট্রাফিক নীতিমালায়।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.