কার্গো পরিবহন বাড়াতে ৯ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করছে এমিরেটস

কার্গো পরিবহন সক্ষমতা বৃদ্ধিতে ১ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করছে এমিরেটস। ১ ডলার ৯০ টাকা হিসাবে এক বিলিয়ন ডলার হলো বাংলাদেশী মুদ্রায় প্রায় ৯ হাজার কোটি টাকা।

ভবিষ্যতে এয়ার কার্গো পরিবহন চাহিদা বৃদ্ধির পূর্বাভাসের ভিত্তিতে এমিরেটসের কার্গো পরিবহন শাখা- স্কাইকার্গো ২০২২ সালে তাদের বহরে ২টি বোয়িং-৭৭৭এফ যুক্ত করবে এবং ২০২৩ এরং ২০২৪ সালের মধ্যে তাদের ৪টি যাত্রীবাহী বোয়িং ৭৭৭-৩০০ইআর উড়োজাহাজকে কার্গো পরিবহনের উপযোগী করে তুলবে।

উড়োজাহাজ নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বোয়িং-এর সঙ্গে ইতোমধ্যে দু’টি কার্গো উড়োজাহাজ ক্রয় চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে এবং এগুলো আগামী বছরের এপ্রিল এবং জুন মাসে এমিরেটস স্কাইকার্গো বহরে যুক্ত হবে।

৪টি যাত্রীবাহী উড়োজাহাজকে কার্গো পরিবহন উপযোগী করার লক্ষ্যে ইসরায়েল এরোস্পেস উন্ডাস্ট্রীজ এর সঙ্গে প্রয়োজনীয় চুক্তিও স্বাক্ষরিত হয়েছে। চুক্তিতে ভবিষ্যতে এজাতীয় আরও যাত্রীবাহী উড়োজাহাজকে ফ্রেইটারে রূপান্তরের বিষয়টিরও উল্লেখ রয়েছে। রূপান্তরিত যাত্রীবাহী বোয়িংগুলোর পে-লোড সক্ষমতা ৭৭৭এফ ফ্রেইটারগুলোর মতোই হবে। অধিকন্ত, এগুলোর টনপ্রতি পরিবহন খরচও অন্যান্য ফ্রেইটারেগুলোর তুলনায় প্রতিযোগিতামূলক।

এমিরেটস স্কাইকার্গো বর্তমানে ৬টি মহাদেশের ১৪০টির অধিক গন্তব্যে মালামাল পরিবহন সেবা দিচ্ছে। সুপরিসর যাত্রীবাহী উড়োজাহাজগুলোও তাদের ফ্লাইট এই সেবা প্রদান করছে। -বিজ্ঞপ্তি

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.