ফেসবুকে পোস্ট দেখে ছাত্রীকে হুইলচেয়ার দিল কানাডা প্রবাসী

ফেসবুকে শারীরিক প্রতিবন্ধী আম্বিয়া খাতুন শোভার একটি পোস্ট দেখে কানাডা প্রবাসী ফখরুল হাসান হুইলচেয়ার দিয়েছেন। ওই প্রতিবন্ধী পীরগঞ্জ সরকারি শাহ আব্দুর রউফ কলেজের মাস্টার্সের (স্নাতকোত্তর) ছাত্রী।

রোববার বিকালে পীরগঞ্জ প্রেস ক্লাব চত্বর থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে ওই প্রতিবন্ধীকে চেয়ারটি উপহার হিসেবে প্রদান করা হয়।

এ সময় পীরগঞ্জ প্রেস ক্লাব সভাপতি মোকসেদ আলী সরকার, সাংবাদিক আব্দুল্লাহিল বাকী বাবলু, সরওয়ার জাহান, জাগোবাহের চেয়ারম্যান আকতারুজ্জামান রানা, রেজাউল করিম, মশফিকুর রহমান পল্টন, মেরাজুল ইসলাম, সেরাজুল ইসলাম সেলিম, বাদল মিয়া, এমদাদুল হক, মাহমুদুল হাসানসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, গত ২৫ ফেব্রুয়ারি পীরগঞ্জের সাংবাদিক সরওয়ার জাহান তার ফেসবুক আইডিতে মাস্টার্স পড়ুয়া প্রতিবন্ধী ছাত্রী শোভা খাতুন সম্পর্কে ছোট্ট একটি স্ট্যাটাস দেন। যার শিরোনাম ছিল ‘একটি হুইলচেয়ার’। ওই স্ট্যাটাসটি পীরগঞ্জের কানাডা প্রবাসী ফখরুল হাসানের নজরে আসে। তিনি প্রতিবন্ধী শোভাকে একটি হুইলচেয়ার দেয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেন।

রোববার বিকালে ওই প্রবাসীর জ্যাঠাতো ভাই শিক্ষক রবিউল ইসলাম মিনুর উপস্থিতিতে হুইলচেয়ারটি প্রদান করা হয়।

চেয়ারটি পেয়ে শোভা জানান, আমার তো দুটো পা নেই। তাই হাতে ভর দিয়েই পায়ের কাজ করি, চলাচল করি। যেদিন বেশি হাতে ভর দিয়ে চলি, সেদিন হাত দুটো খুব ব্যথা করে। চেয়ারটি পেয়ে খুব ভালো হলো।

ওই প্রতিবন্ধী উপজেলার খালাশপীর বঙ্গবন্ধু ডিগ্রি কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক ও ডিগ্রি পাশ করেন। তিনি উপজেলার মদনখালী ইউনিয়নের শ্যামপুর গ্রামের আনিছার রহমানের মেয়ে। প্রতিবন্ধী শোভা বিভিন্ন অনুষ্ঠানে গানও পরিবেশন করেন।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.