‘আপত্তিকর’ ভিডিও ভাইরাল, যা বললেন রাশমিকা

ভারতের দক্ষিণী সিনেমার জনপ্রিয় নায়িকা রাশমিকা মান্দানার আপত্তিকর ভিডিও সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। আর এই ভিডিও নিয়ে এরই মধ্যে বিভিন্ন ধরনের আলোচনা-সমালোচনা হচ্ছে। অবশেষে এ বিষয়ে মুখ খুললেন অভিনেত্রী নিজেই।

ভিডিওতে দেখা যায়, কালো পোশাক পরে লিফট্ থেকে বেরিয়ে আসছেন রাশমিকা। পরনে কালো রঙের পোশাক, যদিও সেটি বেশ কুরুচিকর। পোশাকটিতে অভিনেত্রীর বক্ষবিভাজিক স্পষ্ট। ভিডিও দেখে অনেকেরই প্রশ্ন ছিল, আদৌ এটা রশ্মিকা তো! সাধারণত এই ধরনের পোশাকে দেখা যায় না এই অভিনেত্রীকে।

জানা যায়, ভিডিওটি আসলে নায়িকা রাশমিকার নয়, প্রযুক্তির সাহায্যে এটি তৈরি করা হয়েছে। অন্য এক নারীর ভিডিও কারসাজি করে এই অভিনেত্রীর মুখ বসানো হয়েছে। এই তথ্য প্রকাশ্যে আসতেই অপরাধীর শাস্তি চেয়ে রাশমিকার পাশে দাঁড়ান স্বয়ং অমিতাভ বচ্চন। এবার নিজের এই বিকৃতি ছবি প্রসঙ্গে বিবৃতি দিয়েছেন।

অভিনেত্রী নিজের ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে লেখেন, ‘আমার যে ডিপফেক ভিডিও ছড়িয়েছে সামাাজকমাধ্যমে, সেটা নিয়ে কথা বলতে গেলেও ভীষণ খারাপ লাগছে। আমি ব্যথিত। এই ঘটনা আমার কাছে খুবই ভয়ের। শুধু আমার একার জন্য নয়, যারাই সারাক্ষণ ক্যামেরার সামনে রয়েছেন তাদের জন্য। ভাবলেই ভয় করছে, কী ভাবে প্রযুক্তির অপব্যবহার করা হচ্ছে। আজ একজন নারী ও অভিনেত্রী হিসাবে আমি আমার পরিবার, বন্ধু-বান্ধবদের কাছে কৃতজ্ঞ, যারা আমাকে এই সময় সমর্থন করেছেন আমার পাশে দাঁড়িয়েছেন। কিন্তু ভাবুন, যদি আমি একজন স্কুল-কলেজে পড়া ছাত্রী হতাম, আমার তো মাথা কাজ করত না এই পরিস্থিতিকে সামাল দেওয়ার। আমাদের সকলের উচিত সমষ্টিগতভাবে এগিয়ে এসে এই ধরনের সমস্যা নিয়ে কথা বলা।’

ভিডিওটি আসলে কৃত্রিম মেধা তথা আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ব্যবহার করে বিকৃত করা হয়েছে। কাজটি এআইয়ের সাহায্য নিয়ে করেছেন জারা প্যাটেল নামে এক নারী। এই ভিডিওয় রাশমিকার মুখ বসানো হয়েছে। অর্থাৎ ভিডিওর মুখ রাশমিকার হলেও পরনের পোশাক তার নয়।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.