শীতে ফাটা ঠোঁট থেকে মুক্তি পাওয়ার ঘরোয়া উপায়

শীতের শুরুতেই ফোঁট ফাটার সমস্যা দেখা দেয়। এই সমস্যার কারণে শুধু যে আপনার সৌন্দর্যই নষ্ট হয়, তা নয়। এটি অস্বস্তিরও কারণ হয়ে দাঁড়ায়। তাই ঠোঁট ফাটা প্রতিরোধ করা জরুরি। ঠোঁটের যত্ন নেওয়ার জন্য খুব বেশি উপকরণেরও প্রয়োজন নেই। প্রয়োজন নেই তেমন কোনো খরচেরও। ঘরে থাকা বিভিন্ন উপকরণ দিয়ে আপনি খুব সহজেই ঠোঁটের যত্ন নিতে পারবেন। চলুন জেনে নেওয়া যাক ফাটা ঠোঁট থেকে মুক্তি পাওয়ার ঘরোয়া উপায়-

১. এক্সফলিয়েট করুন

নরম টুথব্রাশ বা পাতলা কাপড়ের টুকরা ভিজিয়ে ঠোঁটের উপর আলতো করে ঘষে নিন। খেয়াল করবেন যেন বেশি জোরে ঘষা না লাগে। এতে ঠোঁট আরও ফেটে যাওয়ার ভয় থাকে। আলতো করে ঘষার কারণে ঠোঁটের উপরের মৃত চামড়া উঠে যাবে। সপ্তাহে অন্নত একবার এভাবে ঠোঁট এক্সফলিয়েট করুন।

২. পর্যাপ্ত পানি পান করুন

আমাদের ঠোঁটে কোনো তৈলগ্রন্থি থাকে না। যে কারণে ঠোঁট খুব সহজেই শুকিয়ে যায়। সমস্যা এড়াতে প্রচুর পানি পান করতে হবে। শীতের সময়ে অনেকে পানি পানের পরিমাণ কমিয়ে দেন। এমনটা করা যাবে না। সেইসঙ্গে ছাড়তে হবে ঘন ঘন ঠোঁট চাটার অভ্যাস। এই অভ্যাসের কারণে ঠোঁট আরও বেশি শুকিয়ে যায়।

৩. সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন

বাইরে বের হওয়ার আগে সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন। কারণ সূর্যরশ্মির প্রভাবেও ঠোঁটের ক্ষতি হতে পারে। তাই মুখ মাস্কে ঢাকা থাকলেও সানস্ক্রিন ব্যবহার করতে হবে। এতে ঠোঁট সুরক্ষিত রাখা সহজ হবে। সানস্ক্রিনের মাত্রা যেন ১৫ সেদিকে খেয়াল রাখবেন।

৪. লিপবাম ব্যবহার করুন

ফাটা ঠোঁটের সমস্যা থেকে আপনাকে মুক্তি দিতে পারে লিপবাম। সেজন্য এসময় লিপবাম ব্যবহার করুন। এসপিএফ লিপবাম ব্যবহার করতে পারলে সবচেয়ে ভালো। দিনে প্রতি দু’ ঘণ্টা পরপর লিপবাম ঠোঁটে লাগিয়ে নিন। খাওয়ার শেষে এবং মুখ ধোওয়ার পর লিপবাম লাগিয়ে নেবেন। এতে উপকার পাবেন।

৫. ঠোঁটের স্ক্রাবার, ক্রিম ব্যবহার করুন

মুখে মাখার স্ক্রাবর বা ক্রিম ঠোঁটে ব্যবহার করবেন না। ঠোঁটের জন্য আলাদা স্ক্রাবার, ক্রিম কিনতে পাওয়া যায়। সেগুলো কিনে ব্যবহার করার চেষ্টা করবেন। বডি লোশন বা ময়েশ্চারাইজার ঠোঁটে না দেওয়াই উত্তম।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.