উত্তর কোরিয়ার প্রশংসা করে কবিতা লেখায় ১৪ মাসের কারাদণ্ড

 

উত্তর কোরিয়ার প্রশংসা করে কবিতা লেখায় দক্ষিণ কোরিয়ার একটি আদালত সেদেশের ৬৮ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে ১৪ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছে।

ওই ব্যক্তির নাম লি ইয়ুন-সেওপ। তিনি তার কবিতায় দুই কোরিয়ার একত্রীকরণের কথা বলেছেন। বলেছেন, যদি দুই কোরিয়া পিয়ংইয়ংয়ের সমাজতান্ত্রিক ব্যবস্থার অধীনে একত্রিত হয় তবে জনগণ বিনামূল্যে বাড়ি, স্বাস্থ্যসেবা ও শিক্ষা পাবে।

দক্ষিণ কোরিয়ার সংবাদ মাধ্যমে বলা হয়, লি’র কবিতাটি ২০১৬ সালে উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রায়াত্ত সংবাদমাধ্যমে প্রকাশ পায়।

বিবিসি জানায়, জনসমক্ষে উত্তর কোরিয়ার প্রশংসা করা নিষিদ্ধ- দক্ষিণ কোরিয়ায় এমন একটি আইনের অধীনে লি কে দোষী সাব্যস্ত করে সাজা দেওয়া হয়েছে।

যিনি তার কবিতায় আরো লেখেন, এক হওয়া কোরিয়াতে অনেক কম মানুষ আত্মহত্যা করবে অথবা ঋণের বোঝার নিচে বসবাস করবে। তার কবিতার শিরোনাম ‘মিনস অব ইউনিফিকেশন’/একত্রীকরণের মানে।

২০১৬ সালের নভেম্বরে লি’র কবিতাটি উত্তর কোরিয়ায় একটি কবিতা প্রতিযোগিতায় পুরস্কার জেতে। লি এর আগেও একবার একই অপরাধে ১০ মাস কারাভোগ করেছেন বলে জানিয়েছে দ্য কোরিয়া হেরাল্ড।

পত্রিকাটি জানায়, সিউলের একটি আদালত সোমবার দেওয়া রায়ে বলে, তিনি ‘উত্তরকে গৌরবান্বিত ও প্রশংসিত করে যথেষ্ট পরিমাণে প্রচারণা তৈরি করেন এবং তা প্রচার করতে থাকেন’।

লি ২০১৩ সালে উত্তর কোরিয়ার সেনাবাহিনীর প্রশংসা করে অনলাইনে নানা মন্তব্য পোস্ট করেছিলেন। পরের বছরগুলিতে তিনি দক্ষিণ কোরিয়ার ব্লগ এবং ওয়েবসাইটে রাষ্ট্রবিরোধী নানা পোস্ট করেন।

দক্ষিণ কোরিয়ার জাতীয় নিরাপত্তা আইনে ‘সরকার বিরোধী’ সংগঠনের প্রশংসা এবং প্রচারকে বেআইনি ঘোষণা করা হয়েছে।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.