বাংলাদেশিদের জন্য ভিসা ফি কমালো চীন

চলতি বছরের ১১ ডিসেম্বর থেকে ২০২৪ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের সব দেশের জন্য ভিসা ফি কমিয়েছে চীন।

আজ শুক্রবার (৮ ডিসেম্বর) দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অফিসিয়াল সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টে প্রকাশিত এক বিবৃতিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, বিদেশে চীনা দূতাবাস এবং কনস্যুলেটগুলো ভিসা ফি বর্তমান হারের ৭৫ শতাংশে কমিয়ে দেবে। চলতি বছরের ১১ ডিসেম্বর থেকে ২০২৪ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত তা বহাল থাকবে।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, স্থানীয় চীনা কূটনৈতিক এবং কনস্যুলার মিশনগুলো আরও তথ্য পেয়েছে। চলতি বছরের ৮ জানুয়ারি কোভিড-১৯কে ক্লাস বি সংক্রামক রোগে নামিয়ে আনা হয়েছে। পরে মানুষদের জন্য ভিসা ও প্রবেশ নীতিগুলো অপ্টিমাইজ করে রেখেছে চীনা সরকার।

চীনা দূতাবাস থেকে জানা গেছে, বাংলাদেশ ও চীনের মধ্যে যোগাযোগ বাড়ানোর লক্ষ্যে ভিসা ফি কমানোর বিষয়ে নতুন পদক্ষেপ নিয়েছে চীন। ছয় মাসের নিচে ভিসার ক্ষেত্রে সিঙ্গেল এন্ট্রি ফি (রেগুলার ডেলিভারি) ২ হাজার ৪০০ টাকা এবং ডাবল এন্ট্রি ৩ হাজার ৬০০ টাকা। এক্সপ্রেস ও আর্জেন্ট ভিসার ক্ষেত্রে চার্জ বেশি।

ছয় মাসের বেশি মাল্টিপল ভিসার (রেগুলার ডেলিভারি) জন্য ফি ৪ হাজার ৮০০ টাকা এবং ১২ থেকে ২৪ মাসের মাল্টিপল ভিসার ফি ৭ হাজার ২০০ টাকা।

এদিন থাইল্যান্ডে চীনা দূতাবাস ভিসা আবেদন ফি সমন্বয়ের বিষয়ে এক বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। সেটি অনুসারে, চলমান বছরের ১১ ডিসেম্বর থেকে ২০২৪ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত থাইল্যান্ডে চীনা দূতাবাস এবং কনস্যুলেটগুলো চীনে ভিসার জন্য আবেদনের ফি কমিয়ে দেবে।

ইতোমধ্যে চীন ও সিঙ্গাপুরের মধ্যে ৩০ দিনের ভিসামুক্ত নীতির ঘোষণা করেছেন সিঙ্গাপুরের উপ-প্রধানমন্ত্রী ও অর্থমন্ত্রী লরেন্স ওং।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.