আফগানিস্তানে ভয়াবহ বিমান দুর্ঘটনা, বহু হতাহতের আশঙ্কা

আফগানিস্তানে যাত্রীবাহী একটি বিমান বিধ্বস্ত হয়েছে। উত্তর আফগানিস্তানের বাদাখশানে বিমানটি ভেঙে পড়েছে বলে জানা গেছে। রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, রাশিয়ার চাটার্ড অ্যাম্বুলেন্স বিমানটিতে ৬ জন যাত্রী ছিলেন।

রাশিয়ান বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ রোববার জানিয়েছে, ছয় জন যাত্রী নিয়ে একটি রাশিয়ান-নিবন্ধিত বিমান আগের রাতে আফগানিস্তানের রাডার স্ক্রীন থেকে অদৃশ্য হয়ে গেছে। স্থানীয় আফগান পুলিশ বলেছে যে তারা দুর্ঘটনার খবর পেয়েছে।

রাশিয়ান এভিয়েশন কর্তৃপক্ষ এক বিবৃতিতে বলেছে যে, বিমানটি একটি চার্টার অ্যাম্বুলেন্স ফ্লাইট ছিল। এটি ভারত থেকে উজবেকিস্তান হয়ে মস্কোর উদ্দেশে যাচ্ছিল।

আফগানিস্তানের প্রাদেশিক পুলিশের মুখপাত্র এক বিবৃতিতে বলেছেন, আফগানিস্তানের উত্তরে বাদাখশানের একটি দুর্গম, পার্বত্য অঞ্চলে রাতে দুর্ঘটনাটি ঘটে। তিনি বলেন, বিমানের ধরন, বিধ্বস্তের কারণ বা হতাহতের বিষয়ে কোনো নিশ্চিত তথ্য পাওয়া যায়নি।

ভয়াবহ দুর্ঘটনার কথা জানিয়েছেন বাদাখশানে তালেবানের তথ্য ও সংস্কৃতি বিভাগের প্রধান জাবিহুল্লাহ আমিরিও। তিনি বলেন, বিমানটি বাদাখশান প্রদেশের কারান, মানজান ও জিবাক জেলার তোপখানেহ পর্বতে বিধ্বস্ত হয়েছে।

জানা গেছে, দুর্ঘটনাস্থলে রওনা দিয়েছে উদ্ধারকারীর দল। তবে এখন পর্যন্ত সরকারি সূত্রগুলো হতাহত বা দুর্ঘটনার কারণ সম্পর্কে কোনো তথ্য দেয়নি। বর্তমানে পরিস্থিতি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

খবরে বলা হয়েছে, যে এলাকায় বিমানটি ভেঙে পড়েছে সেটি ভূপৃষ্ট থেকে তার উচ্চতা ৭ হাজার ৪৯২ মিটার।

এ নিয়ে ভারতের বাণিজ্যিক বিমান পরিবহণ বিভাগ এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘আফগানিস্তানে দুর্ভাগ্যজনকভাবে একটি বিমান ভেঙে পড়েছে। কিন্তু সেটি ভারতীয় বিমান নয়।’

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.