যুক্তরাষ্ট্রে ছুরিকাঘাতে নিহত ৪

যুক্তরাষ্ট্রের ইলিনয় অঙ্গরাজ্যে ছুরিকাঘাতে চারজন নিহত ও সাতজন আহত হয়েছেন। গতকাল বুধবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) ইলিনয়ের রকফোর্ড শহরে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে। নিহতদের মধ্যে ১৫ বছর বয়সী এক কিশোরী, ৬৩ বছর বয়সী এক নারী, ৪৯ ও ২২ বছর বয়সী দুজন পুরুষ রয়েছে।

রকফোর্ডের বাসিন্দা রুথ গ্যালাঘের সংবাদমাধ্যম সিবিএসকে জানান, নিহতদের মধ্যে একজন পোস্টম্যান রয়েছেন। মার্কিন ডাক বিভাগও একজন পোস্টম্যান নিহত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।
বিজ্ঞাপন

এদিকে, এ ঘটনায় ২২ বছর বয়সী এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ। হামলা চালানোর উদ্দেশ্য এখনো স্পষ্ট নয় বলে জানিয়েছে পুলিশ। তারা বলছে, রকফোর্ডের ফ্লোরেন্স স্ট্রিটের একটি বাড়িসহ ক্লিভল্যান্ড এভিনিউ, এগলেসটোন রোড এলাকায় হামলা চালিয়েছেন এই যুবক।

উইনেবাগো কান্ট্রি শেরিফ গ্যারি কারুয়ানা জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছানোর পর এক তরুণীকে হাত-মুখে ছুরিকাঘাতের ক্ষত নিয়ে সন্দেহভাজন হামলাকারীর হাত থেকে পালিয়ে যেতে দেখা যায়। ওই তরুণী এখন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তাকে সাহায্য করতে গিয়ে আরেক ব্যক্তিও ছুরিকাঘাতে আহত হন।

রকফোর্ড পুলিশপ্রধান কারলা রেড বলেন, রকফোর্ড পুলিশ দুপুর ১টা ১৪ মিনিটের দিকে ফোন কল পাই। সেসময় এক ব্যক্তি চিকিৎসা সহায়তার জন্য অনুরোধ করছিলেন। পরবর্তী সময়ে আরও কয়েকজন ব্যক্তি পুলিশ ও চিকিৎসাকর্মীর জন্য কল দেন।

কারলা বলেন, আমরা মনে করছি, এই ঘটনার সঙ্গে একমাত্র ২২ বছর বয়সী ওই যুবকই জড়িত। তার কোনো সহায়তাকারী ছিল না। যেসব এলাকায় হামলা চালানো হয়েছে, আমরা সেই জায়গাগুলোর সিসিটিভি ফুটেজ পর্যালোচনা করে দেখছি। পাশাপাশি এলাকাগুলো আমাদের নজরদারিতে রয়েছে।

এক বিবৃতিতে রকফোর্ড শহরের মেয়র টম ম্যাকনামারা বলেন, আকস্মিক এই হামলা যারা প্রাণ হারিয়েছেন, তাদের পরিবার ও এলাকাবাসীর জন্য আমি আন্তরিকভাবে দুঃখিত। তাদেরকে সমবেদনা জানানোর ভাষা আমার জানা নেই।

সূত্র: সিএনএন, সিবিএস

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.