দুই-তৃতীয়াংশ বাংলাদেশি স্যোশাল এন্টারপ্রাইজে আগ্রহী

british-co20161009192426দুই-তৃতীয়াংশ বাংলাদেশি স্যোশাল এন্টারপ্রাইজে আগ্রহী। দেশের বিভিন্ন স্থানে বিজনেস মডেলের শাখা প্রতিষ্ঠা করে তারা কাজ করতে চায়। বাংলাদেশে স্যোশাল এন্টারপ্রাইজের প্রভাব নিয়ে ব্রিটিশ কাউন্সিলের পরিচালিত দু’টি জরিপে এমন তথ্য জানা গেছে।

ওভারসীজ ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউটের নেতৃত্বে এবং বেটারস্টোরিজ, ইউএন লিমিটেড ও স্যোশাল এন্টারপ্রাইজ ইউকে-এর সহায়তায় জরিপ দু’টি পরিচালনা করা হয়। রোববার দুপুরে বারিধারার হোটেল অ্যাসকট প্যালেসে আয়োজিত অনুষ্ঠানে জরিপের ফল প্রকাশ করা হয়।

জরিপে দেখা যায়, খুব কম সময়ে প্রতিষ্ঠিত স্যোশাল এন্টারপ্রাইজগুলোর নেতৃত্বে তরুণরাই বেশি। বর্তমানে এ খাত হতে বার্ষিক গড় আয় ২ দশমিক ১০ মিলিয়ন টাকা। আগামী অর্থবছরে এর পরিমাণ আরো বাড়বে বলে আশা করা হচ্ছে।

এছাড়াও দেশে বর্তমানে ১ লাখ ৫০ হাজার স্যোশাল এন্টারপ্রাইজ পরিচালিত হচ্ছে। যার থেকে সুবিধা নিচ্ছে ২ লাখ ৭ হাজার মানুষ।

জরিপে আরো জানা গেছে, স্যোশাল এন্টারপ্রাইজে দেশের ৪১ শতাংশ নারী ফুল-টাইম কাজ করতে সক্ষম। যা গতানুগতিক অন্যান্য ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রায় দ্বিগুণ। আর স্যোশাল এন্টারপ্রাইজে নারী নেতৃত্ব ৬ শতাংশ। যা অন্যান্য ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান থেকে ১ শতাংশ বেশি।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে স্যোশাল এন্টারপ্রাইজ খাতে পরিচালনা, সুবিধাভোগী, বিনিয়োগ, কর্মী ও এ খাতের প্রভাব নিয়ে মাত্রিক এবং তথ্যবহুলভাবে এ জরিপ পরিচালনা করা হয়েছে। এতে ১৪৯টি প্রতিষ্ঠান অংশ নেয়। স্যোশাল এন্টারপ্রাইজের উপর এটিই দেশে প্রথম কোন গবেষণা।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.