৩ মে বায়রা দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন: ২৭ পদে ৪৮ জনের লড়াই

Baira-Logoএভিয়েশন নিউজ: বাংলাদেশর জনশক্তি রপ্তানীকারকদের প্রধান সংগঠন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব ইন্টারন্যাশনাল রিক্রুটিং এজেন্সীজ (বায়রা) এর দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে আগামী ৩ মে। বায়রা সচিবালয়ে সকাল নয়টা থেকে বিকাল পাঁচটা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এবারে মোট ভোটার রয়েছেন ৯২৪ জন। ২০০১৪-২০১৬ সেশানের জন্য ২৭ টি কার্যনির্বাহী সদস্য পদের এ নির্বাচনে লড়ছে দুটি প্যানেল।

মোহাম্মদ আবুল বাশারের নেতৃত্বে সম্মিলিত সমন্বয় ফ্রন্ট এবং শাহজালাল মজুমদারের নেতৃত্বে গনতান্ত্রিক ঐক্য ফ্রন্ট। জনশক্তি রপ্তানিখাত বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন,এ নির্বাচনে নিরঙ্কুশভাবে বিজয়ী হতে পারে সম্মিলিত সমন্বয় ফ্রন্ট। ২৭ টি পদে পূর্ণ এই প্যানেলটি ইতিমধ্যে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছে। প্যানেলটিতে ঐক্য ,স¤প্রীত ও দেশপ্রেম রয়েছে। সেইসাথে দক্ষ,সুশীল ও সৎ নেতৃত্বও রয়েছে।

অন্যদিকে গণতান্ত্রিক ফ্রন্ট তাদের ২৭ জন প্যানেল প্রার্থীতাই পুরণ করতে পারেনি। প্যানেলটির ২০ জনের সবাই নিতান্তই অপরিচিত। এছাড়া এই প্যানেলের কোন ইতিহাস নেই। কোন যোগ্য নেতৃত্বও গড়ে উঠেনি। জনশক্তি খাতের ব্যবসায়ী ও ভোটাররা বলছেন,যাদের বৃহৎ এ খাত সম্পর্কে গনতান্ত্রিক ঐক্য ফ্রন্টের কোন অভিজ্ঞতা নেই,আন্তাজার্তিক পরিচিতি নেই,জাতীয় পর্যায়েও কোন কার্যক্রম নেই।

এছাড় স্বতন্ত্র পদে লড়ছেন মো. অলিউল­াহ নামের একজন প্রার্থী। ১৯৮৪ সালে মাত্র ৭০ জন সদস্য নিয়ে যাত্রা শুরু করে বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব ইন্টারন্যাশনাল রিক্রুটিং এজেন্সিজ (বায়রা)। যাত্রা শুরুর ১০ বছর পর ১৯৯৪ সালে প্রথম সদস্যদের সরাসরি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। সেই থেকেই ‘সম্মিলিত সমন্বয ফ্রন্ট’ ব্যানারে, দলমত নির্বিশেষে যোগ্য, সৎ ও কর্মক্ষম নেতৃত্ব তৈরি হয়ে আসছে বায়রার নির্বাচন ইতিহাস বলে যে বলিষ্ঠ নেতৃত্ব প্রতিষ্ঠার অর্জণ রয়েছে সম্মিলিত সমন্বয ফ্রন্টের।

২০০৮ সাল ছাড়া ১৯৯৪ সাল থেকে প্রতিটি নির্বাচনে জয়ী হয়ে এসেছে সম্মিলিত সমন্বয় ফ্রন্ট। সময়ে সময়ে ফ্রন্টে নেতৃত্ব দিয়েছেন দেশের বিশিষ্ট ব্যবসায়ীরা। এদের মধ্যে রয়েছেন সাবেক সংসদ সদস্য মোশাররফ হোসেন,মোহাম্মদ নূর আলী,এমএএইচ সেলিম ও সবশেষ নেতৃত্বে মোহাম্মদ আবুল বাশার। এবারের নির্বাচনে জনশক্তি রপ্তানীখাতের ব্যবসায়ীদের কাছে মোহাম্মদ আবুল বাশার এর বেশ জনপ্রিয়তা দেখা গেছে।

সম্মিলিত সমন্বয় ফ্রন্টের প্রথম সারির নেতৃত্ব এবং বোয়রার বর্তমান মহাসচিব মুক্তিযোদ্ধা আলী হায়দার চৌধুরী এ প্রসঙ্গে বলেন,জনশক্তি রপ্তানিকারকদের উন্নয়ন এখাতের উন্নয়নে আমরা নিবেদিত প্রাণ। দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে যেন আরো গতিশীল ভুমিকা রাখতে পারি সেই চেষ্টাই থাকবে সবসময়।

এছাড়া প্যানেলটিতে মনসুর আহমেদ কালাম,এ.এইচ.এম গোলাম কবির,গোলাম মোস্তফা বাবুল,মো. আবুল বারাকাত ভূইয়া,মোহাম্মদ হাবিবউল্লাহ, মোহাম্মদ ওবায়দুল আরীফসহ সর্বমোট ২৭জন নেতৃত্ব রয়েছেন। যারা জনশক্তি রপ্তানিখাতের উন্নয়নে সুপরিচিত মুখ। নির্বাচনের বিষয়ে জানতে গনতান্ত্রিক ঐক্য ফ্রন্টের প্রধান মো. শাহাজালাল মজুমদারের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.