অল্প সময়েই সুন্দর চুল পেতে

অল্প সময়েই সুন্দর চুল পেতে।

চুলের শুষ্ক ও রুক্ষভাব কমাতে মাসে অন্তত একটি হেয়ার স্পা কিংবা হেয়ার ট্রিটমেন্টের দ্বারস্থ হন অনেকেই। অনেকের আবার সেই সময়টুকুও থাকে না। তাতে ক্রমেই শুষ্ক ও পাতলা হয়ে যায় চুল। আপনার ক্ষেত্রেও এমন হলে বেছে নিতে পারেন বেশ কিছু ঘরোয়া উপায়। যাতে অল্প সময়েই পেয়ে যাবেন কাঙ্ক্ষিত সুন্দর চুল।

চুল শুষ্ক হয়ে গেলে গোসল করতে যাওয়ার আগে ডিম ফেটিয়ে তাতে দই মিশিয়ে নিন। গোসলে যাওয়ার আগে এই প্যাক চুলে লাগিয়ে রেখে দিন মিনিট পনেরো। এরপর শ্যাম্পু করে ধুয়ে নিন চুল। প্যাক শুকিয়ে যাওয়া অবস্থায় খুব বেশিক্ষণ চুলে না রেখে দেয়াই ভালো।

সপ্তাহে তিন দিন রাতে গরম তেল মালিশ করার মতো মিনিট দশেক সময় হাতে রাখুন। নারিকেল তেল ও ক্যাস্টর অয়েল মিশিয়ে গরম করে চুলের গোড়া ও মাথার ত্বকে ভালো করে আঙুল দিয়ে মালিশ করে মাথা ঢেকে শুয়ে পড়ুন। সকালে উঠে শ্যাম্পু করে নিন।

শীতে সারা শরীরে গরম পানি দিয়ে গোসল করলেও চুলে অবশ্যই ঠান্ডা পানি দিন। গরম পানি চুলের গোড়া আলগা করে চুল ঝরিয়ে দেয়। মেলানিনের ক্ষতি করে চুলের কালো রং নষ্ট করে দেয়।

আপনার চুলের স্বাস্থ্য ও প্রকৃতি অনুযায়ী শ্যাম্পু ব্যবহার করুন। প্রতিবার শ্যাম্পুর পর অবশ্যই কন্ডিশনার ব্যবহার করুন।

আমন্ড তেল গরম করে তা দিয়ে পাঁচ মিনিট মাসাজ করে মিনিট পনেরো রেখে ধুয়ে ফেলুন চুল। সপ্তাহে দু’দিন করলেও অনেকটাই উপকার পাবেন।

চিরুনি ব্যবহারে মাথার ত্বকের ক্ষতি হয়। চুলের গোড়া ফাটার জন্য এটিও অন্যতম কারণ। সম্ভব হলে কাঠের চিরুনি ব্যবহার করুন।

নিয়মিত যত্নের পাশাপাশি খাবার পাতে রাখুন সবুজ শাক-সবজি, ভিটামিন সি সমৃদ্ধ খাবার ও ফল।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.

EN