ঘন কুয়াশায় বাতিল ২০০ ফ্লাইট, দিল্লি বিমানবন্দরে ক্ষুব্ধ যাত্রীরা

ঘন কুয়াশায় বাতিল ২০০ ফ্লাইট, দিল্লি বিমানবন্দরে ক্ষুব্ধ যাত্রীরা।

পর পর বাতিল হচ্ছে ফ্লাইট।অভিযোগ সেই খবর যাত্রীদের কানে আসছে না। বাতিল হওয়া সংশ্লিষ্ট বিমান সংস্থাগুলির কাউন্টারে গিয়েও মিলছে না তথ্য। সব মিলিয়ে শনিবার সকাল থেকে চরম অরাজকতা শুরু হয় দিল্লি বিমানবন্দরে। ঘন কুয়াশার জেরে ইতিমধ্যে বাতিল হয়েছে ২০০টি ফ্লাইট। আরওফ্লাইট বাতিলের আশঙ্কা। প্রায় ৯-১০ঘণ্টা অপেক্ষার পরও ফ্লাইট বাতিলের খবর পেয়ে ক্ষোভে ফেটে পড়েছেন যাত্রীরা।

যাত্রীদের অভিযোগ টানা অপেক্ষার পর ফ্লাইট বাতিল হচ্ছে। কিন্তু যাত্রীদের কাছে কোনও তথ্য আসছে না। এমনকী ফ্লাইট বাতিলের ঘোষণাও করা হয়নি।এর ফলে কাউন্টারের সামনে ভিড় করেন কয়েক হাজার যাত্রী। ফ্লাইট বাতিলের ঘোষণা হতেই ক্ষোভ বাড়ে যাত্রীদের মধ্যে। দিল্লি বিমানবন্দরের এক সিআইএসএফ আধিকারিক জানাচ্ছেন, খারাপ আবহাওয়ার জন্য ২০০ বিমান ফ্লাইট করা হয়। যা ঘোষণা হতেই বিমানবন্দর কার্যত বাস স্ট্যান্ডে পরিণত হয়। ভিড় সামলাতে গিয়ে নাজেহাল হয়ে পড়েন বিমান কর্মীরা।

খারাপ আবহাওয়ার জেরে প্রতিদিনই দিল্লি বিমানবন্দরে বাতিল হচ্ছে ৬ থেকে ৭টি ফ্লাইট। গত কয়েকদিনে পরিস্থিতি এতটাই খারাপ হয় যে, ফ্লাইট বাতিলের সংখ্যা লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়তে শুরু করে। সবমিলিয়ে সেই সংখ্যা ২০০-তে গিয়ে ঠেকেছে। সকাল থেকে বিমান চলাচল পুরোপুরি বন্ধ হয়ে যায়। বেলা বাড়তে হাতে গোনা কয়েকটি বিমান চললেও এখনও বিমানবন্দরের অপেক্ষায় রয়েছেন কয়েক হাজার যাত্রী। অনেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজেদের ক্ষোভ প্রকাশ করছেন। তবে, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে তৎপর হয়েছে বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.

EN