মালয়েশিয়ায় কর্মী পাঠানোর পথ সুগম হতে যাচ্ছে

বাংলাদেশের জন্য মালয়েশিয়ায় কর্মী পাঠানোর পথ আরও একধাপ সুগম হতে যাচ্ছে। বাংলাদেশি কর্মী নিয়োগের বিষয়ে দুই দেশের মধ্যে শিগগির সমঝোতা স্মারকের বিষয়ে আগ্রহ দেখিয়েছে মালয়েশিয়া।

আগামী ১৬ ফেব্রুয়ারি এ বিষয়ে দুই দেশের মন্ত্রীসহ প্রতিনিধিদের উপস্থিতিতে ভার্চুয়াল সভা হওয়ার কথা রয়েছে।

মালয়েশিয়ার মানব সম্পদ মন্ত্রী এবং বাংলাদেশের প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী সভায় সূচনা বক্তব্য রাখবেন। পরে জনশক্তি রপ্তানি বিষয়ে গঠিত যৌথ কারিগরি কমিটির (জয়েন্ট ওয়ার্কিং গ্রুপ) সদস্যের মধ্যে আলোচনা হবে।

প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের একটি সূত্রে জানা গেছে, গত ৯ ফেব্রুয়ারি পাঠানো এক ইমেইলে মালয়েশিয়ার মানব সম্পদ মন্ত্রণালয় ভার্চুয়াল সভা করার ব্যাপারে বাংলাদেশকে প্রস্তাব দিয়েছে। সেই প্রস্তাব অনুযায়ী ১৬ ফেব্রুয়ারি মালয়েশিয়ার স্থানীয় সময় দুপুর আড়াইটায় এই সভা হওয়ার কথা রয়েছে।

ইমেইল বার্তায় সভার আলোচ্য বিষয় কী হবে সে নিয়েও উল্লেখ করা হয়েছে। এর মধ্যে বাংলাদেশের জনশক্তি রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা বিদেশে কর্মী পাঠাতে দেশের চলমান অনলাইন প্রক্রিয়া নিয়ে সভায় আলোচনা হবে। এছাড়া মালয়েশিয়ায় কর্মী পাঠাতে এবং বাংলাদেশ থেকে কর্মী নিতে যে সমঝোতা স্মারক দুই দেশের মধ্যে হবে তার প্রস্তাবিত মেয়াদকাল কতদিন হবে তা নিয়ে আলোচনা হবে। কবে এই স্মারক স্বাক্ষর হতে পারে তার প্রস্তাবিত দিনক্ষণ নিয়েও কথা বলবে দুই দেশের প্রতিনিধিরা।

করোনা মহামারির মধ্যে বিদেশে বাংলাদেশি কর্মীদের কর্মসংস্থান সৃষ্টির গতি প্রায় থমকে ছিল। অনেক দেশ থেকে কর্মীদের বাধ্যতামূলকভাবে ফিরে আসতে হয়েছে। এই অবস্থায় মালয়েশিয়া কর্মী নিতে দুই দেশের মধ্যে আলোচনার যে আগ্রহ দেখাচ্ছে তা ইতিবাচক। এটি ফলপ্রসু হলে জনশক্তি রপ্তানিখাতে চলমান সংকট কাটিয়ে ওঠা সম্ভব হবে।

যৌথ কারিগরি কমিটি মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার চালু করতে দুই বছর ধরে কাজ করছে। গত বছরের শুরুর দিকে দুই দেশের মধ্যে আলোচনায় অগ্রগতি হয়েছিল। কিন্তু করোনা মহামারির কারণে আলোচনা এক পর্যায়ে বন্ধ হয়ে যায়। সর্বশেষ গত বছরের ১৫ অক্টোবর দুই দেশের মন্ত্রী পর্যায়ে অনলাইন বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.