ইসরাইল ‘মৃত সাগর পাণ্ডুলিপি’র নতুন ৪০ টুকরোর সন্ধান পেল

ইসরাইলি প্রত্নতাত্ত্বিকরা মরুভূমির একটি গুহায় বাইবেলের বাণীসমৃদ্ধ মৃত সাগর পাণ্ডুলিপির অন্তত ৪০টি টুকরোর সন্ধান পেয়েছেন ।

রোমের বিরুদ্ধে এক হাজার ৯০০ বছর আগে ইহুদিদের বিদ্রোহের সময় এসব পাণ্ডুলিপি গুহায় লুকিয়ে রাখা হয়েছিল বলে ধারণা বিশেষজ্ঞদের।

মঙ্গলবার পাণ্ডুলিপিগুলো উন্মুক্ত করেছে ইসরাইলি পুরাকীর্তি কর্তৃপক্ষ।

অধিকৃত পশ্চিমতীর ও ইসরাইলের দক্ষিণাঞ্চলে ইয়াহুদি মরুভূমিতে খননকালে এসব শিল্পকর্ম পাওয়া গেছে।

অঞ্চলটি ‘বিভীষিকার গুহা’ নামে পরিচিত। ভেতরে মানুষের বহু কঙ্কাল পাওয়ার কারণে এটির নাম দেওয়া হয়েছে বিভীষিকার গুহা। এর চারপাশের অঞ্চলও ব্যাপক বিপজ্জনক।

সেখানে হিব্রু বাইবেলের গ্রিক ভাষায় তরজমার পাণ্ডুলিপির অংশ খুঁজে পান বিশেষজ্ঞরা। ১৯৬০-এর দশকের পর থেকে পাওয়া পাণ্ডুলিপির মধ্যে এটিকে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অনুসন্ধান বলে আখ্যায়িত করা হয়েছে।

ইসরাইলি কর্তৃপক্ষ বলছে, গত প্রায় ৬০ বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো প্রত্নতাত্ত্বিকরা এসব পাণ্ডুলিপির খোঁজ পেয়েছেন।

গ্রিক ভাষায় লেখা পাণ্ডুলিপিগুলোর অধিকাংশ প্রাচীন। মূলত ১৯৪০ থেকে ১৯৫০-এর দশকে কুমরানের নিকটবর্তী পশ্চিমতীরের মরু গুহায় পাওয়া ইহুদি গ্রন্থের বিভিন্ন অংশের সংগ্রহকে ‘মৃত সাগর পাণ্ডুলিপি’ বলে।

নতুন পাওয়া এসব শিল্পকর্ম যদিও খুব ছোট। কিন্তু এখান থেকে আমরা নতুন অনেক তথ্য পাবেন বলে জানান ইসরাইলি পুরার্কীতি কর্তৃপক্ষের মৃত সাগর পাণ্ডুলিপি ইউনিটের ওরিন আবলেমান।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.