অর্ধেক কর্মী ছাঁটাই করবে পাকিস্তানের বিমান সংস্থা পিআইএ

পাকিস্তান ইন্টারন্যাশনাল এয়ারলাইনস (পিআইএ) তাদের ৩০ টি বিমানে অর্ধেক কর্মী দিয়ে কাজ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।
বিমান সংস্থাটি জানিয়েছে, এসব বিমানে কর্মরত ১৪ হাজার কর্মচারীর অর্ধেককে আপাতত বাধ্যতামুলক ছুটিতে রাখা হয়েছে।
পাশাপাশি যেসব রুট এক দশকেরও বেশি সময় ধরে খারাপ অবস্থায় আছে সেগুলোকে লাভজনক অবস্থায় নিতে নতুনভাবে সব কিছু পুনর্গঠন করা হবে।

প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের উপদেষ্টা ইশরাত হুসেন বলেছেন, পাকিস্তানের মন্ত্রিসভা এই পুনর্গঠনের ব্যাপারে অনুমোদন দিয়েছে।

এর আগে পিআইএয়ের কর্মচারী এবং রাজনৈতিক বিরোধী দলগুলো এই প্রস্তাবের বিরোধিতা করেছিল।
ইশরাত হুসেইন জানান, এই মুহূর্তে, আমিরাত, এতিহাদ বা কাতার বিমান সংস্থার মতো হয়ে ওঠার কোনও পরিকল্পনা তাদের নেই।
তারা চান, ২০২৩ সালের মধ্যে পিআইএকে লাভজনক একটা অবস্থায় ফিরিয়ে আনতে।

গত বছর পাকিস্তানের বিমানমন্ত্রী বলেছিলেন, দেশটির প্রায় এক তৃতীয়াংশ পাইলট ভুয়া লাইসেন্সধারী।
তার এ বক্তব্যের পর করোনার বিধিনিষেধ ছাড়াও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপসহ বিশ্বের অনেক দেশে পিআইএয়ের বিমান চলাচল নিষিদ্ধ করা হয়।
এছাড়া করাচিতে একটি দুর্ঘটনায় ৯৭ জন নিহত হওয়ায় তদন্তকারীরা পিআইএর বিমানের ক্রুকে দোষোরোপ করেছিল।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.