বিমানবন্দর সড়কে পাঠাও চালকসহ দুজন নিহত

রাজধানীর বিমানবন্দর এলাকায় এক অজ্ঞাত গাড়ির চাপায় মোটরসাইকেলের দুই আরোহী নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার ভোর ৪টার দিকে এ দুর্ঘটনায় ঘটে।

নিহতরা হলেন- পাঠাও চালক রফিকুল ইসলাম সুমন (৪০) ও আরোহী কাজল আক্তার (৩৫)। বিমানবন্দর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) জুয়েল মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে আউটগেটের ফুট ওভারব্রিজের নিচে অজ্ঞাত গাড়ির চাপায় ঘটনাস্থলেই দুজন মারা যান। সংবাদ পেয়ে সেখান থেকে মৃতদেহ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের আইনি প্রক্রিয়া শেষে সকালে ঢামেক মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ছাড়া দুজনকে চাপা দেওয়া গাড়িটি শনাক্তের চেষ্টা চলছে।

নিহত সুমনের ফুপাতো ভাই ফুয়াদ হাসান পল্লব জানান, সুমনের বাবার নাম নুরুল ইসলাম। তাদের বাড়ি পিরোজপুর স্বরূপকাঠি উপজেলার জগৎপুর গ্রামে। তিন মেয়ে ও স্ত্রীকে নিয়ে তাঁতীবাজারে থাকতেন সুমন। ছোটখাটো একটি ব্যবসার পাশাপাশি তিনি মোটরসাইকেল রাইড শেয়ারিং সেবা দিতেন। সকালে পুলিশের মাধ্যমেই তারা দুর্ঘটনার খবর পেয়ে ঢামেক মর্গে এসেছেন।

কাজলের মা হাসিনা বেগম জানান, তাদের বাড়ি ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার রানাপয়সা গ্রামে। পাঁচ বছর আগে স্বামী সেলিমের সঙ্গে তার বিচ্ছেদ হয়ে যায়। দুই ছেলে ও এক মেয়েকে নিয়ে খিলগাঁও দক্ষিণ গোড়ান এলাকায় মায়ের সঙ্গে থাকতেন তিনি।

হাসিনা বেগম বলেন, কাজল একটি বারে কাজ করে প্রায় ১০ বছর হলো। প্রতিদিনের মতোই গতকাল (বুধবার) বিকাল ৪টার দিকে বাসা থেকে বের হয়। অন্য দিন রাতে বাসায় ফিরে আসে। কাল রাতে আর বাসায় ফেরেনি। অনেক খোঁজখবর করেও কিছু জানতে পারিনি। সকালে পুলিশ জানিয়েছে সড়ক দুর্ঘটনায় কাজল মারা গেছে।

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.