৪০ সেকেন্ডেই মোটরসাইকেল চুরি করেন তারা!

রাজধানীর লালবাগ কেল্লার সামনে থেকে জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থার (এনএসআই) এক কর্মকর্তার ব্যক্তিগত মোটরসাইকেল চুরি হয়। এই ঘটনায় দায়ের করা মামলার প্রেক্ষিতে মোটরসাইকেল চুরি চক্রের সাত সদস্যকে গ্রেফতার করেছে লালবাগ থানা।

গ্রেফতাররা হলেন- চক্রের মূলহোতা সোহেল ও তার সহযোগীরা- সুনিল, হুমায়ুন, হৃদয়, আওয়াল ও স্বাধীন।

এ সময় তাদের কাছ থেকে বিভিন্ন এলাকা থেকে চুরি করা ১০টি মোটরসাইকেল ও চুরিতে ব্যবহৃত বিপুল পরিমাণ নকল চাবি উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ জানায়, যেসব মোটরসাইকেলে অতিরিক্ত লক থাকে না এবং দুর্বল লক সেসব মোটরসাইকেলকে টার্গেট করতো চক্রটি। এরপর তাদের কাছে থাকা মাস্টার চাবি দিয়ে ৪০ থেকে ৫০ সেকেন্ডেই মুহূর্তের মধ্যে মোটরসাইকেল চুরি করে পালিয়ে যেত।

পরবর্তীতে ৩০ থেকে ৫০ হাজার টাকায় চোরাই এসব মোটরসাইকেল বিক্রি করা হতো।

বুধবার (১০ আগস্ট) নিজ কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান (ডিএমপি) লালবাগ বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মো. জাফর হোসেন।

তিনি বলেন, গত মাসের ২৪ তারিখে লালবাগ কেল্লার সামনে থেকে এক এনএসআই কর্মকর্তার মোটরসাইকেল চুরি হয়। লালবাগ থানায় চুরির অভিযোগ দায়ের করলে শুরু হয় তদন্ত কার্যক্রম।

তদন্তের ধারাবাহিকতায় প্রথমে মুন্সিগঞ্জের লৌহজং এলাকা থেকে চোর চক্রের দুই জনকে গ্রেফতার করা হয়। এরপর তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে শরীয়তপুর ও মুন্সিগঞ্জ থেকে চক্রের বাকী ৫ জনকে গ্রেফতার হয়।

পুলিশের এই কর্মকর্তা আরও বলেন, চোর চক্রের অন্যতম হোতা সোহেল গত ৫-৬ বছর ধরে মোটরসাইকেল চুরি করে আসছিল। এই চক্রের বাকী সদস্যদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।

 

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.