বাংলাদেশি পাসপোর্ট নিয়ে জেদ্দা যাওয়ার পথে আরসা নেতা গ্রেপ্তার

বাংলাদেশি পাসপোর্ট ব্যবহার করে সৌদি আরবের জেদ্দা যাওয়ার সময় মিয়ানমারের বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন আরাকান রোহিঙ্গা সলিডারিটি অ্যালায়েন্সের (আরসা) এক নেতাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তার আসাদুল্লাহ কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার থ্যাংখালী শরণার্থী ক্যাম্পে বসবাস করেন।

গটকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় চট্টগ্রামের শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তাকে গ্রেপ্তার করে ইমিগ্রেশন পুলিশ।

এরপর নগর গোয়েন্দা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়। নগর গোয়েন্দা পুলিশ ১১ ফেব্রুয়ারি ভোরে তাকে উখিয়া থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে।

আসাদুল্লাহ কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার থ্যাংখালী শরণার্থী ক্যাম্পে বসবাস করেন।

শাহ আমানত বিমানবন্দরে নিয়োজিত বিশেষ পুলিশ সুপার এ টি এম শাহীন আহমেদ বলেন, ‘একটি মামলার সূত্র ধরে আসাদুল্লাহ নামে এক ব্যক্তিকে বিদেশ যাওয়ার সময় আটকে দেয়। পরে তাকে সিএমপির গোয়েন্দা পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়। সৌদি আরবের জেদ্দাগামী ফ্লাইটের (বিজি-১৩৫) যাত্রী হিসেবে আসাদুল্লাহ বোর্ডিং পাস সংগ্রহ করেছিলেন। ফ্লাইটটি সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় বিমানবন্দর ছেড়ে যাওয়ার কথা ছিল। এর আগেই তাকে আমরা গ্রেফতার করি।’

নগর গোয়েন্দা পুলিশের উপ-কমিশনার (ডিবি-উত্তর) নিহাদ আদনান তাইয়ান বলেন, ‘বাংলাদেশী পাসপোর্ট নিয়ে বিদেশ যাওয়ার সময় আসাদুল্লাহকে গ্রেফতার করা হয়। যাচাই-বাছাই শেষে শনিবার তাকে উখিয়া থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়। তিনি উখিয়া ১২ নম্বর রোহিঙ্গা ক্যাম্পে থাকতেন। তার বিরুদ্ধে গত ৯ জানুয়ারি হত্যা মামলা করা হয়। তিনি পালিয়ে বিদেশ যাওয়ার চেষ্টা করছিলেন। তার পাসপোর্ট জব্দ করা হয়েছে। কিভাবে বাংলাদেশী পাসপোর্ট পেয়েছেন সে বিষয়ে তদন্ত করে দেখা হবে।

 

আরও খবর
আপনার কমেন্ট লিখুন

Your email address will not be published.